1. admin@gonopotrika.com : admin :
রবিবার, ১৪ জুলাই ২০২৪, ০২:১৭ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
রাজশাহীর বাঘায় ৬০০ পিচ ইয়াবাসহ আটক ১ কলকাতার পৃথিবীর বৃহত্তম যৌনপল্লী সোনাগাজীতে পালিত হল ২৯ তম জন্মবার্ষিকী উৎসব। কোটচাঁদপুরে বলুহর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান নজরুল ইসলাম এর কাজই হামলা মামলা করা। হরিপুরে ১২০ গ্রাম গাঁজাসহ গ্রেফতার-১ ভোলায় মায়ের সাথে অভিমান করে স্কুল শিক্ষার্থীর আত্মহত্যা। প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেন প্রতি বছর ১ হাজার তরুন-তরুণি প্রশিক্ষণ নিয়ে নিজের কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করতে পারবে বর্ণাঢ্য আয়োজনের মধ্যে দিয়ে বিআরইউ’র ১২ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন প্রবাসী যুবকের রহস্যজনক মৃত্যুতে আসামিদের গ্রেফতারের দাবিতে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল! ঠাকুরগাঁওয়ে পুলিশের অভিযানে মাদকদ্রব্য উদ্ধার গ্রেফতার-৪ লালমনিরহাটে ইন্স্যুরেন্সের আড়ালে অসামাজিক কার্যকলাপ-আটক ৪

বৃদ্ধা নারীর বয়স্ক ভাতার টাকা লুট করলেন মহিলা মেম্বর

  • প্রকাশের সময় : রবিবার, ২১ জানুয়ারি, ২০২৪
  • ১০৬ বার পঠিত

মোঃ কামাল হোসেন, বিশেষ প্রতিনিধি:

যশোরের অভয়নগরে এক বৃদ্ধা নারীর সরকারী বয়স্ক ভাতার টাকা কৌশলে লুটে নিলেন মহিলা ইউপি সদস্য।

অনুসন্ধানে জানা গেছে, অভয়নগর উপজেলার ২ নং সুন্দলী ইউনিয়নের ১ নং ওয়ার্ডের মৃত- হরিপদ বিশ্বাসের স্ত্রী সারতী বৈরাগী(৭৩) এর সংসারে অভাব অনটনসহ অসুস্থতার ঔষধ জোগাড় হয়না। ফলে তিনি স্থানীয় সংরক্ষিত ১,২,৩ নং ওয়ার্ডের মহিলা ইউপি সদস্য অঞ্জনা রাণী মন্ডলের দারস্থ হন। সবকিছু দেখে ওই ইউপি সদস্য বয়স্ক ভাতার কার্ড করার জন্য ২ হাজার টাকা লাগবে বলে জানান। ফলে, অসহায় বয়স্কা নারী অতি কষ্টে ১৮০০ টাকা গুছিয়ে ওই ধুরন্ধর ইউপি সদস্যের হাতে দেয়। যথাযথভাবে সরকারি নিয়ম মেনে বৃদ্ধা নারীর বয়স্ক ভাতার কার্ড ইস্যু হয় যার কার্ড নং ১৯, এ্যাকাউন্ট নং ১০৮৩৪৪১৩৫৩১৬৪। অত্র বয়স্ক ভাতার টাকা ভুক্তভোগীকে গত ১৮ জানুয়ারি এশিয়া ব্যাংক ৭৮৫০/- টাকা প্রদান করে। ভুক্তভোগীর হাত থেকে সব টাকা কেড়ে নিয়ে ২ হাজার টাকা ওই বয়স্ক বৃদ্ধা নারীর হাতে দিয়ে ইউপি সদস্য অঞ্জনা চম্পট দেয়। যাওয়ার সময় ভুক্তভোগী নারীকে ভয় দেখিয়ে যায়, এ বিষয়ে কাউকে কিছু জানালে কার্ড বাতিলসহ বিভিন্ন বিপদে ফেলা হবে। প্রতারক মহিলা ইউপি সদস্য আড়পাড়া গ্রামের পিনাক্ষী মন্ডলের স্ত্রী।

অভয়নগর উপজেলার ২ নং সুন্দলী ইউনিয়নের সংরক্ষিত মহিলা ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য অঞ্জনা রাণী মন্ডল ওই বয়স্ক নারীর ভাতার টাকা আত্মসাতের কথা স্বীকার করে বলেন, আমার ভুল হয়েছে, এরকম আর হবেনা, আমি ওই নারীর সব টাকা এখন ফেরত দিয়ে আসতেছি।

অনুসন্ধানে আরো জানা গেছে, ওই ইউপি সদস্য আরো অনেকের সাথে কার্ড করে দেওয়ার কথা বলে টাকা হাতিয়ে নিয়েছেন।

এবিষয়ে ২ নং সুন্দলী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান বিকাশ রায় কপিল বলেন, টাকা আত্মসাতের ঘটনা মিথ্যা, এগুলো বাদ দেন, আমি শুনে সকালে ডেকে নিয়ে আসছিলাম, ওই বয়স্ক মহিলা পাগল, এবিষয়ে কিছু করার দরকার নেই।

Facebook Comments Box
এ জাতীয় আরও খবর
© স্বত্ব সংরক্ষিত © ২০২৩ গণ পত্রিকা
Theme Customized By Shakil IT Park