1. admin@gonopotrika.com : admin :
শুক্রবার, ১২ জুলাই ২০২৪, ০৪:৪২ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
ডিমলায় বঙ্গবন্ধু ও বঙ্গমাতা গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের উদ্বোধন। কুড়িগ্রামে শিশুদের প্রতি সহিংসতা বন্ধে স্থানীয় স্টেক হোল্ডারদের সাথে সংলাপ অনুষ্ঠিত আত্রাইয়ে জয় বাংলা ঐক্য পরিষদের কমিটি গঠন সভাপতি চঞ্চল!! সম্পাদক সজল ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী বিশ্বের সকলের সাথে বানিজ্যিক সম্পর্ক দৃঢ় করতে চায় ভোলা সদর উপজেলায় এক গৃহবধূর রহস্যজনক মৃত্যু আমতলীতে বিদ্যালয় চলাকালীন সময়ে প্রাইভেট পড়াচ্ছেন সহকারী শিক্ষক নওগাঁর বদলগাছীতে ছোট যমুনা নদী গোসল করতে গিয়ে নিখোঁজ, অতঃপর ১ দিন পর লাশ উদ্ধার রাজশাহী শিরোইল বাসস্ট্যান্ড এলাকা হতে ২২ জুয়ারী’কে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-৫ ধামইরহাটে ৩ মাস ধরে গৃহবন্ধী অসহায় এক পরিবার পুকুরে সাতার কেটে বের হন বাড়ী থেকে মুসলিম মহিলাদের খোরপোশ ন্যায় অধিকার, খয়রাতি নয়, সাফ জানিয়ে দিল ভারতের সর্বোচ্চ আদালত সুপ্রিম কোর্ট

চাটখিলে প্রতিহিংসা বশত ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে আগুন: দোকানঘর পুড়ে ছাঁই

  • প্রকাশের সময় : বুধবার, ১৭ জানুয়ারি, ২০২৪
  • ৭৩ বার পঠিত

মোজাম্মেল হক, নোয়াখালী প্রতিনিধি:

চাটখিল পৌর শহরের দশানীটবগা এলাকার রাজা মিয়া হাজি বাড়ি সংলগ্ন শহিদুল ইসলামের কনফেকশনারি দোকানে প্রতিহিংসা বশত আগুন লাগিয়ে ব্যবসা প্রতিষ্ঠান পুড়ে ছাঁই করে দেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এই ঘটনায় ভুক্তভোগী ব্যবসায়ী শহিদুল ইসলাম তার অপর দুই ভাই ফারুক হোসেন ও মনির হোসেন বাবুর বিরুদ্ধে বুধবার (১৭ জানুয়ারি) বিকেলে চাটখিল থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন।

অভিযোগে জানা যায়, ভুক্তভোগী ব্যবসায়ী শহিদুল বাবার সম্পত্তির নিজ অংশে দোকান ঘর নির্মাণ করে ব্যবসায় পরিচালনা করে আসছে। তার দোকান ঘরের পূর্ব পার্শ্বে তার ভাই ফ্রান্স প্রবাসী মনির হোসেন বাবু ডুপলেক্স বিল্ডিং নির্মাণ করে। এতে বাবু তার বাড়ির সৌন্দর্য্য বর্ধনের জন্য শহিদুলকে দোকান ঘর সরিয়ে নিতে চাপ প্রয়োগ করে। শহিদুল দোকান ঘর সরিয়ে না নিলে আগুন দিয়ে পুড়ে ছাঁই করে দেওয়ার হুমকি দিয়ে মনির হোসেন বাবু শুক্রবার ফ্রান্সে চলে যায়।

পরবর্তীতে শহিদুল সোমবার সকালে তার দোকান ঘরের পার্শ্বে মাটি ভরাট করতে গেলে অপর ভাই ফারুক হোসেন বাঁধা দেয়। এরই ধারাবাহিকতায় মনির হোসেন বাবু ও ফারুক হোসেন যোগসাজশে গত মঙ্গলবার গভীর রাতে শহীদুলের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে আগুন লাগিয়ে দেয়।

শহিদুল চাটখিল প্রেস ক্লাবে এসে উপস্থিত সাংবাদিকদের জানান, পার্শ্ববর্তী আয়েশা আক্তার আগুনে দোকান পুড়ে যেতে দেখে শৌরচিৎকার দিলে আশপাশের লোকজন এসে ফায়ার সার্ভিসে সংবাদ দিলে ফায়ার কর্মীরা এসে আগুন নিয়ন্ত্রণ করে। এসময় শহিদুলের ব্যবসা প্রতিষ্ঠান সম্পন্ন পুড়ে ছাঁই হয়ে যায়। তিনি এই ঘটনায় পুরোপুরি নিঃস্ব হয়ে গেছে। তাই তিনি সংশ্লিষ্টদের কাছে ন্যায় বিচার কামনা করেছেন।

চাটখিল থানার ওসি মুহাম্মদ ইমদাদুল হক অভিযোগ প্রাপ্তির কথা স্বীকার করে জানান, বিষয়টি গুরুত্বের সাথে তদন্ত করে প্রয়োজনীয় আইনানুক ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

Facebook Comments Box
এ জাতীয় আরও খবর
© স্বত্ব সংরক্ষিত © ২০২৩ গণ পত্রিকা
Theme Customized By Shakil IT Park